পুলকারে কলকাতার নামী স্কুলের দুই নাবালক ছাত্রকে মারধর! গ্রেপ্তার চালক ও খালাসি

অর্ণব আইচ: পুলকারের ভিতর দুই স্কুল ছাত্রের সঙ্গে অভব‌্যতার অভিযোগ। চালক ও খালাসি গ্রেপ্তার পুলিশের হাতে। ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে।
পুলিশ জানিয়েছে, ১১ বছর বয়সের ওই দুই নাবালক কলকাতার একটি নামী ইংরেজি মাধ‌্যম স্কুলের ছাত্র। দুজনেরই বাড়ি দক্ষিণ কলকাতার ভবানীপুরে। শেক্সপিয়র সরণি এলাকার নামী স্কুল থেকে পুলকারে করে বাড়ি ফেরে দুই ছাত্র। অভিযুক্তদের গাড়িটি নতুন। গত কয়েকদিন ধরে ওই নতুন পুলকারে তারা যাতায়াত করছে। বুধবার ঝণ্টু সর্দার ও রাজু মণ্ডল নামে পুলকারের চালক ও খালাসি ছাত্রদের সঙ্গে নিয়ে বাড়ির দিকে রওনা হয়। গাড়িটি নতুন হওয়ার কারণে তার ভিতরের সিটগুলি প্লাস্টিক দিয়ে মোড়া ছিল। ওই ছাত্রদের অভিভাবকদের অভিযোগ অনুযায়ী, তারা মজা করে ওই নতুন সিটগুলির প্লাস্টিক খুঁচিয়ে ছিঁড়তে শুরু করে। তার ফলে প্লাস্টিক ছিঁড়েও যায়। সেই কারণে দুই ছাত্রকেই প্রচণ্ড বকাবকি করে পুলকারের চালক ও খালাসি। কিন্তু ছাত্ররা তাতেও গুরুত্ব দেয়নি।
[আরও পড়ুন: বাঁশি-ঝুমঝমি-লজেন্স নিয়ে প্রস্তুতিই সার, বিধানসভায় ঘণ্টাখানেকেই শেষ BJP-র বিক্ষোভ]
অভিভাবকদের অভিযোগ, তাঁদের ছেলেদের উপর উদ্দেশ‌্যপ্রণোদিতভাবেই হামলা চালায় পুলকারের চালক ও খালাসি। তারা আক্রোশের বশেই দুই ছাত্রকে মারধর করে। পুলকারের মধ্যে কাঁদতে থাকে দুই কিশোর। তাতেও আক্রোশ কমেনি দু’জনের। ভবানীপুরের যে জায়গায় তারা নামে, তাদের সেখানে না নামিয়ে আরও অনেকটা নিয়ে যায় চালক। তারা পুলকারের মধ্যেই চিৎকার শুরু করলে অভিযুক্তরা তাদের ধমকিয়ে চুপ করানোর চেষ্টা করে বলে অভিযোগ। ফের মারধরের ভয় দেখানো হয়। বেশ কিছুটা দূরে রীতিমতো জোর করে নামিয়ে দিয়ে চলে যায় পুলকার চালক। সেখান থেকে দুই ছাত্র রাস্তা চিনে হাঁটতে হাঁটতে বাড়িতে পৌঁছয়। বাড়ি যাওয়ার পরই কান্নায় ভেঙে পড়ে তারা।
অভিভাবকরা পুলিশকে জানিয়েছেন, ওই ঘটনার পর থেকে তাঁদের ছেলেরা বেশ আতঙ্কে রয়েছে। যেহেতু স্কুলটি শেক্সপিয়র সরণি থানা এলাকায়, তাই দুই পরিবারের সদস‌্যরা তাঁদের ছেলেদের বক্তব‌্য অনুযায়ী বুধবার রাতে শেক্সপিয়র সরণি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। তারই ভিত্তিতে পুলিশ তদন্ত শুরু করে। গভীর রাতেই চালক ও খালাসির বাড়ি গিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। বৃহস্পতিবার দুই ধৃতকে ব‌্যাঙ্কশাল আদালতে তোলা হলে তাদের ২ ডিসেম্বর পর্যন্ত জেল হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেন বিচারক। এই ঘটনার তদন্তে শেক্সপিয়র সরণি ও ভবানীপুর থানা এলাকার বেশ কয়েকটি জায়গার সিসিটিভি পরীক্ষা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।
[আরও পড়ুন: বউভাত মিটতেই ধরনায়! নববধূর বেশে বিধানসভায় তৃণমূল বিধায়ক শম্পা ধাড়া]

Source: Sangbad Pratidin

Related News
ভগৎ সিংয়ের জন্মভিটেয় মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিলেন ভগবন্ত মান, দুই রাজ্যে মুখ্যমন্ত্রী ঠিক করল বিজেপিও
ভগৎ সিংয়ের জন্মভিটেয় মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিলেন ভগবন্ত মান, দুই রাজ্যে মুখ্যমন্ত্রী ঠিক করল বিজেপিও

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘উড়তা পাঞ্জাব’ নয় এবার থেকে স্লোগান হবে ‘বাড়তা পাঞ্জাব’। পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিয়ে বললেন ভগবন্ত Read more

মোদির রাজ্যে নৃশংসতা! স্ত্রীকে খুন, মেয়ের দেহ ১০ টুকরো করে নর্দমায় ফেলল ‘গুণধর’ বাবা
মোদির রাজ্যে নৃশংসতা! স্ত্রীকে খুন, মেয়ের দেহ ১০ টুকরো করে নর্দমায় ফেলল ‘গুণধর’ বাবা

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: স্ত্রী ও কন্যাকে খুন করেছেন। সেখানেই শেষ নয়, টুকরো করে কুচিয়েছেন কন্যার দেহও। মেয়ের দেহের টুকরো Read more

আচমকা আম্বানির মতো ধনী! শ্রমিকের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে ঢুকল প্রায় ৩ হাজার কোটি টাকা
আচমকা আম্বানির মতো ধনী! শ্রমিকের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে ঢুকল প্রায় ৩ হাজার কোটি টাকা

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এত বড় স্বপ্ন দেখেননি উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) বিহারী লাল (Bihari Lal), যত বড় সত্যি ঘটে গেল Read more

ভাঙন ঠেকাতে এবার সৌমিত্র খাঁকে অর্জুনের ছেড়ে যাওয়া পদে আনল বিজেপি!
ভাঙন ঠেকাতে এবার সৌমিত্র খাঁকে অর্জুনের ছেড়ে যাওয়া পদে আনল বিজেপি!

সুদীপ রায়চৌধুরী: একদিন আগেই বাংলা ভাগের ডাক দিয়েছিলেন। সেই সৌমিত্র খাঁকে এবার ‘পুরস্কৃত’ করল বিজেপি (BJP)। এবার থেকে বিজেপির শ্রমিক Read more

ইদের আগে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা, পুড়ে ছাই বঙ্গবাজারের কাছেই রাস্তায় বসে চলছে বিক্রিবাটা
ইদের আগে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা, পুড়ে ছাই বঙ্গবাজারের কাছেই রাস্তায় বসে চলছে বিক্রিবাটা

সুকুমার সরকার, ঢাকা: ঢাকার বঙ্গবাজারের পর এবার আগুনের লেলিহান শিখায় সর্বশান্ত বাংলাদেশের উত্তরের জনপদ জেলা গাইবান্ধা সদর উপজেলার লক্ষ্মীপুর হাটের Read more

ইন্ডিয়া জোটে তৃণমূলের গুরুত্ব বুঝেই আমাকে আটকানোর চেষ্টা: অভিষেক
ইন্ডিয়া জোটে তৃণমূলের গুরুত্ব বুঝেই আমাকে আটকানোর চেষ্টা: অভিষেক

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: তৃণমূলকে ভয় পাচ্ছে বিজেপি। বারবার তৃণমূলকেই নিশানা করা হচ্ছে। তৃণমূলের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। অন্যদের বিরুদ্ধে তো Read more